সুবর্ণজয়ন্তীতে প্রাণহানির ঘটনায় কানাডা প্রবাসীদের উদ্বেগ – দৈনিক ঢাকার ডাক – bnewsbd.com

প্রবাস

নিজস্ব প্রতিনিধি, বিনিউজবিডি.ডটকম :

স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে মহান স্বাধীনতা দিবসে হরতালের নামে ব্রাহ্মণবাড়িয়াসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে হামলা ও ১৪ জন মানুষের প্রাণহানির ঘটনায় কানাডা প্রবাসী বাংলাদেশিরা গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

আলবার্টার প্রথম বাংলা অনলাইন পোর্টাল ‘প্রবাস বাংলা ভয়েস’ এর আয়োজনে প্রধান সম্পাদক আহসান রাজীব বুলবুলের সঞ্চালনায় এক ভার্চুয়াল আলোচনায় বক্তারা বলেন স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর এই মহেন্দ্রক্ষণে সারা বিশ্বের রাষ্ট্রনায়করা যখন বাংলাদেশের সার্বিক অগ্রগতি ও উন্নয়নের প্রশংসায় পঞ্চমুখ ঠিক তখনই স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধবিরোধী চক্র অর্জিত গৌরবকে নষ্ট করার নীল নকশা করছে।

আলোচনায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন কলামিস্ট, উন্নয়ন গবেষক ও সমাজতাত্ত্বিক বিশ্লেষক মাহমুদ হাসান। অংশ নেন প্রকৌশলী মোহাম্মদ কাদির, সিলেট অ্যাসোসিয়েশন অব ক্যালগেরির সভাপতি রুপক দত্ত, ডা. জীবন দাশ, এবিএম কলেজের প্রতিষ্ঠাতা ড. মো. বাতেন, কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব ও সাবেক ছাত্রনেতা কিরণ বনিক শংকর এবং লেখক বায়াজিদ গালিব।

আলোচনায় বক্তারা জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে আগুন দেয়াসহ বহু সরকারি-বেসরকারি অফিসে হামলা, গাড়ি ভাঙচুর, রেললাইন উপড়ে ফেলার গভীর নিন্দা জানিয়ে অবিলম্বে দোষী ব্যক্তিদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

স্বাগত বক্তব্যে উন্নয়ন গবেষক ও সমাজতাত্ত্বিক বিশ্লেষক মো. মাহমুদ হাসান বলেন, ‘নরেন্দ্র মোদির সফরের বিরোধিতার নামে সাম্প্রদায়িক গোষ্ঠী দেশের উন্নয়নকে বাধাগ্রস্ত করে একাত্তরের ব্যর্থতার প্রতিশোধ নিতেই মরিয়া হয়ে উঠেছে। জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি তাদের হ্রদয়ের দহনকে বহুগুণে বাড়িয়ে দেয়। তাই মোদির আগমনের প্রতিবাদে সর্বপ্রথমেই জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে আগুন দিয়েছে। পাকিস্তানের আজ্ঞাবহ বলেই ২৬ মার্চে নারকীয় তান্ডবে মেতে ওঠে।’

প্রকৌশলী মো. কাদির বলেন, ‘স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে এ ধরনের ঘটনা কোনোভাবেই মেনে নেয়া যায় না। বাংলাদেশের সাম্প্রতিককালে ঘটে যাওয়া ঘটনায় আমরা প্রবাসীরা উদ্বিগ্ন।’

বিশিষ্ট সমাজকর্মী ও সিলেট অ্যাসোসিয়েশন অব ক্যালগেরির সভাপতি রুপক দত্ত সরকারের নীরবতার সমালোচনা করে বলেন, ‘যারা দেশের আনুগত্যে বিশ্বাস করে না, পাকিস্তানই যাদের ধ্যান-জ্ঞান তাদের প্রশ্রয় দিলে উন্নয়ন অগ্রগতি ব্যাহত হয়ে দেশ আফগানিস্তানের পথে এগুবে। পঁচাত্তরের বিয়োগান্তক ঘটনার একুশ বছর পরে দেশপ্রেমিক শক্তি ক্ষমতা ফিরে ফেলেও উগ্রবাদীদের হাতে নিয়ন্ত্রণ গেলে শত বছরেও তা ফেরত পাওয়া যাবে না।’

এবিএম কলেজের প্রতিষ্ঠাতা প্রেসিডেন্ট ড. মো. বাতেন বলেন, ‘সাম্প্রদায়িক শক্তির বিরুদ্ধে সরকারের সুনির্দিষ্ট পদক্ষেপ দেখতে চাই। বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশের বিরুদ্ধে তাদের ঘোষিত যুদ্ধের মোকাবিলায় সরকারের সর্বশক্তি প্রয়োগের মাধ্যমে এদের নিয়ন্ত্রণের আহ্বান জানাই।’

ডা. জীবন দাশ বলেন, ‘হেফাজত ও অন্যান্য স্বাধীনতাবিরোধী চক্র জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরাল ও প্রতিকৃতি ধ্বংস করার ধৃষ্টতা দেখায়। আমরা এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই।’

কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব ও সাবেক ছাত্রনেতা কিরণ বনিক শংকর বলেন, ‘নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ সফরকে কেন্দ্র করে নিজ দেশের জানমালের ক্ষতি করা কেমন ধরনের প্রতিবাদ? বর্তমান সরকার কঠোর হস্তে তা দমন করতে না পারলে তার খেসারত অচিরেই দিতে হবে। আমরা দেশটাকে আবার পশ্চাৎপদ হতে দেখতে চাই না। বাংলাদেশেকে আফগানিস্তান হতে দেয়া যাবে না।’

লেখক বায়োজিদ গালিব বলেন, ‘স্বাধীনতার ৫০ বছর পরও যদি মৌলবাদীদের দমন করতে ব্যর্থ হয় তাহলে বাংলাদেশের ভবিষ্যৎ নিয়ে আমরা উদ্বীগ্ন। দেশে যতই উন্নয়ন হোক, দেশকে সাম্প্রদায়িকতার উর্ধ্বে নিতে না পারলে সে উন্নয়ন স্থায়ী হবে না।’

বিনিউজবিডি.ডটকম

আধুনিক বাংলাদেশ গড়ার দৃঢ় প্রত্যয়ে সংবাদ পরিবেশনে দৃঢ় প্রতিশ্রুতিবদ্ধ নিয়ে “বিনিউজবিডি.ডটকম” বাংলাদেশের প্রতিটি বিভাগ, জেলা, উপজেলা, গ্রামে-গঞ্জে ঘটে যাওয়া দৈনন্দিন ঘটনাবলী যা মানুষের দৃষ্টি ও উপলব্ধিতে নাড়া দেয় এরূপ ঘটনা যেমন, শিক্ষা,স্বাস্থ্য, পরিবেশ, সামাজিক উন্নয়ন, অপরাধ, দুর্ঘটনা ও অন্যান্য যে কোন আলোচিত বিষয়ের দৃষ্টি নন্দন তথ্য চিত্রসহ সংবাদ পাঠিয়ে সাংবাদিক হিসেবে নিজেকে আত্ম প্রকাশ করুন।

প্রতি মুহুর্তের খবর মুহুর্তেই পাঠকের মাঝে পৌছে দেয়ার লক্ষ্য কাজ করে যাচ্ছে একঝাঁক সাহসী তরুণ সংবাদ কর্মী। এরই ধারাবাহিকতায় স্বল্প সময়ের মধ্যে বাংলাদেশ সহ দেশের বাহিরে বিভিন্ন দেশে সংবাদদাতা নিয়োগ দেয়া হচ্ছে।

বিদেশের মাটিতে অবস্থানরত লেখা-লেখিতে আগ্রহী যে কোনো বাংলাদেশীও প্রবাসী নাগরিক “বিনিউজবিডি.ডটকম” এর সংবাদদাতা/প্রতিনিধি হিসেবে আবেদন করতে পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *