মঠবাড়িয়ায় তুচ্ছ ঘটনায় প্রতিপক্ষের হামলায় দুই নারীসহ আহত ৬ – bnewsbd.com

সারাদেশ

নিজস্ব প্রতিনিধি, বিনিউজবিডি.ডটকম :

মঠবাড়িয়া (পিরোজপুর) সংবাদদাতা : পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় তুচ্ছ ঘটনায় প্রতিপক্ষের হামলায় দুই নারীসহ ৬ জন গুরুতর আহত হয়েছে। ২৪ এপ্রিল শনিবার সন্ধ্যায় উপজেলার উলুবাড়িয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

আহতরা হলেন- ওই গ্রামের মৃত রাখাল সমাদ্দারের ছেলে কেশব সমাদ্দার (৬৫), দীপক সমাদ্দারের স্ত্রী কাজুরি (৩০), কেশব সমাদ্দারের স্ত্রী সুশীলা রানী (৫৫), ছেলে দীপক (৩০), মৃত. মোসলেম মীরের ছেলে মজিবর (৫৫) ও মৃত. সতীশ সমাদ্দারের ছেলে সুজন সমাদ্দার (৩৫)। পুলিশ হাসপাতাল পরিদর্শণ করেছেন।

আহত সূত্রে জানা যায়, শনিবার সকালে স্থানীয় জনৈক সালাম খানের ক্ষেতের মুগডাল ননী শিকদারের গরুতে খেয়ে নস্ট করে। ঘটনাটি দ্বীপক সমাদ্দার ওই সালাম খানকে অবহিত করেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে শনিবার সন্ধ্যার পর ননী শিকদার, চিত্ত শিকদারের ছেলের চিন্ময়, ননী শিকদারের ছেলে নান্টু, মৃত. কান্ত শিকদারের ছেলে ননী ও পুলিন শিকদার, পুলিন শিকদারের ছেলে চ লসহ অজ্ঞাত ৩-৪ জন ব্যক্তির একটি দল নিয়ে কেশব সমাদ্দারের বাড়িতে হামলা চালিয়ে ৪ জনকে গুরুতর আহত করে। এসময় মারামারি ঠেকাতে গিয়ে মজিবর মীর ও সুজন সমাদ্দার আহত হন। এ ব্যপারে চিত্ত শিকদারের বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।
মঠবাড়িয়া থানার ওসি মাসুদুজ্জামান বলেন, লিখিত অভিযোগ পেলে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

বিনিউজবিডি.ডটকম

আধুনিক বাংলাদেশ গড়ার দৃঢ় প্রত্যয়ে সংবাদ পরিবেশনে দৃঢ় প্রতিশ্রুতিবদ্ধ নিয়ে “বিনিউজবিডি.ডটকম” বাংলাদেশের প্রতিটি বিভাগ, জেলা, উপজেলা, গ্রামে-গঞ্জে ঘটে যাওয়া দৈনন্দিন ঘটনাবলী যা মানুষের দৃষ্টি ও উপলব্ধিতে নাড়া দেয় এরূপ ঘটনা যেমন, শিক্ষা,স্বাস্থ্য, পরিবেশ, সামাজিক উন্নয়ন, অপরাধ, দুর্ঘটনা ও অন্যান্য যে কোন আলোচিত বিষয়ের দৃষ্টি নন্দন তথ্য চিত্রসহ সংবাদ পাঠিয়ে সাংবাদিক হিসেবে নিজেকে আত্ম প্রকাশ করুন।

প্রতি মুহুর্তের খবর মুহুর্তেই পাঠকের মাঝে পৌছে দেয়ার লক্ষ্য কাজ করে যাচ্ছে একঝাঁক সাহসী তরুণ সংবাদ কর্মী। এরই ধারাবাহিকতায় স্বল্প সময়ের মধ্যে বাংলাদেশ সহ দেশের বাহিরে বিভিন্ন দেশে সংবাদদাতা নিয়োগ দেয়া হচ্ছে।

বিদেশের মাটিতে অবস্থানরত লেখা-লেখিতে আগ্রহী যে কোনো বাংলাদেশীও প্রবাসী নাগরিক “বিনিউজবিডি.ডটকম” এর সংবাদদাতা/প্রতিনিধি হিসেবে আবেদন করতে পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *