বগুড়ায় একদিনে আরও ১৭ জনের মৃত্যু – দৈনিক ঢাকার ডাক – bnewsbd.com

সারাদেশ

নিজস্ব প্রতিনিধি, বিনিউজবিডি.ডটকম :

বগুড়া  প্রতিনিধি :   বগুড়ায় গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে সাতজন ও উপসর্গ নিয়ে আরও ১০ জন মারা গেছেন।

সোমবার (১৯ জুলাই) অনলাইন ব্রিফিংয়ে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. মোস্তাফিজুর রহমান তুহিন।

তিনি জানান, সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় জেলায় আরও ৪৯৪টি নমুনা পরীক্ষায় ১৬৯ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। আক্রান্তের হার ৩৪ দশমিক ২১ শতাংশ। এদের মধ্যে সদরের ১০৩ জন, শাজাহানপুরের ২৫ জন, শিবগঞ্জের ১৫ জন, শেরপুরের ছয়জন, কাহালুরের ছয়জন, দুপচাঁচিয়ার ছয়জন, গাবতলীর ছয়জন, সারিয়াকান্দির চারজন, নন্দীগ্রামের তিনজন, আদমদীঘির দুজন এবং সোনাতলার একজন রয়েছেন। এছাড়া একই সময়ে সুস্থ হয়েছেন আরও ১৭০ জন।

তিনি জানান, রোববার বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমন মেডিকেল কলেজের পিসিআর ল্যাবে ২৮২টি নমুনা পরীক্ষায় ১০৪ জন, জিন এক্সপার্ট মেশিনে ১১টি নমুনায় চারজন এবং এন্টিজেন পরীক্ষায় ১৭১টি নমুনায় ৪৯ জন করোনায় শনাক্ত হয়েছেন। এছাড়া বেসরকারি টিএমএসএস মেডিকেল কলেজের পিসিআর ল্যাবে ৩০টি নমুনায় ১৩ জনের করোনা পজিটিভ আসে।

জেলায় এ পর্যন্ত মোট ১৭ হাজার ২৪৬ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এদের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১৪ হাজার ৬০৯ জন এবং ৫১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া ২ হাজার ১২৩ জন চিকিৎসাধীন।

বিনিউজবিডি.ডটকম

আধুনিক বাংলাদেশ গড়ার দৃঢ় প্রত্যয়ে সংবাদ পরিবেশনে দৃঢ় প্রতিশ্রুতিবদ্ধ নিয়ে “বিনিউজবিডি.ডটকম” বাংলাদেশের প্রতিটি বিভাগ, জেলা, উপজেলা, গ্রামে-গঞ্জে ঘটে যাওয়া দৈনন্দিন ঘটনাবলী যা মানুষের দৃষ্টি ও উপলব্ধিতে নাড়া দেয় এরূপ ঘটনা যেমন, শিক্ষা,স্বাস্থ্য, পরিবেশ, সামাজিক উন্নয়ন, অপরাধ, দুর্ঘটনা ও অন্যান্য যে কোন আলোচিত বিষয়ের দৃষ্টি নন্দন তথ্য চিত্রসহ সংবাদ পাঠিয়ে সাংবাদিক হিসেবে নিজেকে আত্ম প্রকাশ করুন।

প্রতি মুহুর্তের খবর মুহুর্তেই পাঠকের মাঝে পৌছে দেয়ার লক্ষ্য কাজ করে যাচ্ছে একঝাঁক সাহসী তরুণ সংবাদ কর্মী। এরই ধারাবাহিকতায় স্বল্প সময়ের মধ্যে বাংলাদেশ সহ দেশের বাহিরে বিভিন্ন দেশে সংবাদদাতা নিয়োগ দেয়া হচ্ছে।

বিদেশের মাটিতে অবস্থানরত লেখা-লেখিতে আগ্রহী যে কোনো বাংলাদেশীও প্রবাসী নাগরিক “বিনিউজবিডি.ডটকম” এর সংবাদদাতা/প্রতিনিধি হিসেবে আবেদন করতে পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *