কন্টেইনারবাহী পরিবহনে বাড়ি ফিরছে মানুষ – bnewsbd.com

স্বাস্থ্য-চিকিৎসা

নিজস্ব প্রতিনিধি, বিনিউজবিডি.ডটকম :

পরিবারের সঙ্গে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে নাড়ির টানে বাড়ি ফিরছেন মানুষ। বৈরী আবহাওয়ায় ট্রাক, পিক-আপ, কন্টেইনারবাহী পরিবহনে পরিবার নিয়ে গ্রামের বাড়ির দিকে ছুটছেন তাঁরা। 

আজ মঙ্গলবার সরেজমিনে ঘুরে দেখা যায়, ঢাকা ময়মনসিংহ মহাসড়কের জৈনা বাজার এলাকায় দীর্ঘ সময় ধরে দাঁড়িয়ে রয়েছে কন্টেইনারবাহী পরিবহন। তাতে বাড়ি ফেরা নারী-পুরুষ ও ছোট শিশুরাও রয়েছে। রিমঝিম বৃষ্টিতে ভিজতে ভিজতে চলছেন গন্তব্যে। তারপরও রাস্তায় ধীরে ধীরে এগিয়ে চলছে গাড়ি। মাঝে মধ্যে ঘণ্টার পর ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থাকছে।

কন্টেইনারবাহী পরিবহনের যাত্রী মো. সাইফুল ইসলাম জানান, গাজীপুর থেকে জৈনা বাজার আসতেই সময় লেগেছে তিন ঘণ্টা। ময়মনসিংহ পৌঁছাতে কত সময় লাগবে সেটি বুঝতে পারছি না। 

আরেক যাত্রী রেহেনা আক্তার বলেন, মা বাবার সঙ্গে ঈদ করতে বাড়ি যাচ্ছি। সকাল থেকে কোন বাস না পেয়ে কন্টেইনারবাহী গাড়িতে উঠেছি। একই স্থানের ট্রাকের যাত্রী আনোয়ার হিমেল বলেন, কষ্ট হলেও বাড়ি যেতে হবে। গ্রামে মা বাবা ভাইবোন থাকে। তাছাড়া কোম্পানির চাকরি করি ঈদ ছাড়া ছুটি পায় না। 

পিক-আপের চালক মতিউর রহমান বলেন, এ বছর রাস্তায় খুবই জ্যাম। এক ঘণ্টার রাস্তা চার ঘণ্টা সময় লাগছে।  
 
মাওনা হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো.কামাল হোসেন বলেন, রাস্তায় যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক রাখতে কাজ করছে পুলিশ। তাছাড়া ঈদে যানবাহনের চাপ অনেক বেশি।    

বিনিউজবিডি.ডটকম

আধুনিক বাংলাদেশ গড়ার দৃঢ় প্রত্যয়ে সংবাদ পরিবেশনে দৃঢ় প্রতিশ্রুতিবদ্ধ নিয়ে “বিনিউজবিডি.ডটকম” বাংলাদেশের প্রতিটি বিভাগ, জেলা, উপজেলা, গ্রামে-গঞ্জে ঘটে যাওয়া দৈনন্দিন ঘটনাবলী যা মানুষের দৃষ্টি ও উপলব্ধিতে নাড়া দেয় এরূপ ঘটনা যেমন, শিক্ষা,স্বাস্থ্য, পরিবেশ, সামাজিক উন্নয়ন, অপরাধ, দুর্ঘটনা ও অন্যান্য যে কোন আলোচিত বিষয়ের দৃষ্টি নন্দন তথ্য চিত্রসহ সংবাদ পাঠিয়ে সাংবাদিক হিসেবে নিজেকে আত্ম প্রকাশ করুন।

প্রতি মুহুর্তের খবর মুহুর্তেই পাঠকের মাঝে পৌছে দেয়ার লক্ষ্য কাজ করে যাচ্ছে একঝাঁক সাহসী তরুণ সংবাদ কর্মী। এরই ধারাবাহিকতায় স্বল্প সময়ের মধ্যে বাংলাদেশ সহ দেশের বাহিরে বিভিন্ন দেশে সংবাদদাতা নিয়োগ দেয়া হচ্ছে।

বিদেশের মাটিতে অবস্থানরত লেখা-লেখিতে আগ্রহী যে কোনো বাংলাদেশীও প্রবাসী নাগরিক “বিনিউজবিডি.ডটকম” এর সংবাদদাতা/প্রতিনিধি হিসেবে আবেদন করতে পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *